অভিজিৎ চক্রবর্তী’র কবিতা

আমার ছোটবেলা

ছোট বেলার প্লাষ্টিকের প্রিয় মাছ
চোখের ভেতর অল্প আয়ুর আঁচ
তবুও দৌঁড়ে বেড়ানো ভঙ্গুর খলা
করে গলা খুলে ফেলে দুধের কৌটো
উল্টো পথে তবু ফিরে আসে ছয়চোক্খা মাছ
নিয়ে স্মৃতি বিভ্রমের ইতিহাস।
কৃষ্ণচোরা খেলার দম নিয়ে ঘুরে বেড়ানো বিকেল
আজ-কাল ছাদে সবুজে মুখ থুবড়ে পড়ে থাকে
চেঙ ধরা সন্ধ্যায় মানুষ আবারও মাছ হতে তড়পায়
কিংবা চাঁদের আলোয় পড়া মুখস্থের রাতগুলো আবারও পড়তে থাকে দিনযাপনের নামোতা।

দূরন্ত লোকাল

এপাশে রোদের অভাব
পুরনো স্মৃতির এ্যালবামে পড়ে গেছে চশমার দাগ
অভাবে বিবর্তিত স্বভাব
ব্যাথা-অপ্রাপ্তির খেয়ালে কতো অনুরাগ।
উড়ন্ত পরযায়ী পাখি মেলে ধরেছে যেনো বহু পরিশ্রান্ত ডানা,
নষ্ট এ শহরে স্মৃতিচারণ মানা
পাথুরে দেয়ালে সেঁটে আছে নরম রোদের মতো গভীর অসুখ
দূরন্ত এ লোকালে কতো চেনা মুখ!

উৎসূক জনতার ভীড় ঠেলে
সে সব মুখে আজ চোখ যায় গেলে
সময় হারায় না,হারায় অধিকার
জীবন নিয়ে গেছে বহু আগেই
বেঁচে থাকা প্রতিদিন,আরেক হাহাকার

মস্তিষ্ক খোঁজে আজ একাল-সেকাল
শুধু পরিশ্রান্ত ডানায় ভর করে থেকে যায় দূরন্ত লোকাল।

অভিজিৎ চক্রবর্তী